হার্দিকের ব্যাটে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে সিরিজ জয় ভারতের

হার্দিকের ব্যাটে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে সিরিজ জয় ভারতের
Image source

দুরন্ত জয় টিম ইন্ডিয়ার৷ ২০১৬ সালের পর অস্ট্রেলিয়াকে তাদের মাটিতে টি-২০ সিরিজে হারাল ভারত৷ ওয়ান ডে সিরিজ হারলেও তিন ম্যাচের টি-২০ সিরিজ জিতল কোহলি অ্যান্ড কোং৷

এসসিজি-তে ১৯৫ রান তাড়া করে ম্যাচ জিয়ে নেয় টিম ইন্ডিয়া৷ হার্দিক পান্ডিয়ার ব্যাটিং সাইক্লোনে ২ বল বাকি থাকতেই ম্যাচ জিতে নেয় ভারত৷ প্রথম ম্যাচে ১১ রানে জিতেছিল টিম ইন্ডিয়া৷ আর রবিবার দ্বিতীয় ম্যাচে অস্ট্রেলিয়াকে ৬ উইকেটে হারিয়ে এক ম্যাচ বাকি থাকতেই সিরিজ জিতে নেয় বিরাটবাহিনী৷

রান তাড়া করতে নেমে লোকেশ রাহুল ও শিখর ধাওয়ানের ব্যাটে দারুণ শুরু করে ভারত৷ ওপেনিং জুটিতে ৫৬ রান যোগ করে ভারত৷ ২২ বলে ৩০ রান করে আউট হন রাহুল৷ পাওয়ার প্লে-তে রাহুলের উইকেট হারিয়ে ৬০ রান তোলে টিম ইন্ডিয়ার৷ দারুণ শুরু করার পর ধাওয়ান ও বিরাট কোহলির ব্যাটে ভারতে এগিয়ে যায়৷ দ্বিতীয় উইকেটে দু’জনে ৩৯ রান যোগ করেন৷

দুরন্ত হাফ-সেঞ্চুরির পর আউট হন ধাওয়ান৷ ৩৬ বলে ৫২ রান করে অ্যাডাম জাম্পার শিকার হন তিনি৷ চারটি বাউন্ডারি ও ২টি ছক্কা হাঁকান৷ ধাওয়ান আউট হওয়ার পর ইনিংসের হাত ধরেন কোহলি৷ ২৪ বলে ৪০ রান করেন বিরাট৷ দু’টি বাউন্ডারি ও দু’টি ওভার বাউন্ডারি হাঁকান তিনি৷ এরপর হার্দিক ও শ্রেয়স আইয়ার ভারতকে বৈতরণী পার করান৷

অবিভক্ত পঞ্চম উইকেটে ২১ বলে ৪৬ রান তুলে ভারতকে ৬ উইকেট জেতান হার্দিক ও আইয়ার৷ ২২ বলে তিনটি বাউন্ডারি ও ২টি ছক্কা হাঁকিয়ে ৪২ রানে অপরাজিত থাকেন হার্দিক৷ শেষ ওভারে ভারতের জয়ের জন্য দরকার ছিল ১৪ রান৷ প্রথম বলে ২ রান নেন হার্দিক৷ তার পরের ডেলিভারি ডট হয়৷ কিন্তু পরের দু’টি ডেলিভারিতে দু’টি ছক্কা হাঁকিয়ে ভারতকে জেতান হার্দিক৷ ৫ বলে ১২ রানে অপরাজিত থাকেন শ্রেয়স৷ ম্যাচের সেরা হার্দিক৷

এর আগে প্রথম ব্যাটিং করে ৫ উইকেটে ১৯৪ রান তুলেছিল অজিবাহিনী৷ মাত্র ২৫ বলে ১০টি বাউন্ডারি ও একটি ছক্কা হাঁকিয়ে হাফ-সেঞ্চুরি করেন ওয়েড৷ শেষ পর্যন্ত ৩২ বলে ৫৮ রান করে রান-আউট হন ওয়েড৷ এছাড়া ৪৬ রান করেন স্মিথ৷

তবে ভয়ংকর হয়ে ওঠা হেনরিকে ফিরিয়ে অস্ট্রেলিয়াকে দু’শোর আগে থামান নটরাজন৷ ১৮ বলে ২৬ রান করেন তিনি৷ সিরিজের প্রথম ম্যাচে ভারতীয় দলের জার্সিতে অভিষেক হওয়া ২৯ বছরের এই বাঁ-হাতি পেসার নটরাজন এদিনও দারুণ বোলিং করেন৷ ৪ ওভারে মাত্র মাত্র ২০ রান খরচ করে দু’টি উইকেট তুলে নেন৷


সুত্র : কলকাতা২৪x৭

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য